7 December 2022

NEWSCOPE

"Open to all, but Influenced by None"

বীর দাস কি একজন মুসলিম?

ভারতীয় কৌতুক অভিনেতা বীর দাস ওয়াশিংটনের কেনেডি সেন্টারে স্বরচিত একটি লেখনী পাঠ করেন। লেখনীটির শিরোনাম ছিল, “Two Indias”। ১৫ই নভেম্বর ২০২১ সেই লেখনী পাঠের ভিডিওটি তিনি নিজের ইউটিউব চ্যানেলে আপলোড করেন, যার পরিপ্রেক্ষিতে তাঁকে নিয়ে বিতর্কের সৃষ্টি হয়। সেইরকম বিতর্কিত দুটি পঙক্তির অনুবাদ করলে সারমর্ম দাঁড়ায়, “আমি এমন এক ভারত থেকে আসি, যেখানে আমরা দিনের বেলা নারীদের পূজা করি, আমি এমন এক ভারত থেকে আসি যেখানে আমরা রাতের বেলা তাদের গণধর্ষণ করি।” কারও মতে তাঁর বক্তব্য ছিল সঠিক, আবার কারও মতে তিনি বিদেশে গিয়ে নিজের দেশকে ছোট করেছেন। সেই নিয়ে নানান তর্ক বিতর্কের সৃষ্টি হয়। কিন্তু যাকে নিয়ে এত বিতর্ক, কে সেই বীর দাস?

বীর দাস হলেন একজন কৌতুক অভিনেতা এবং কৌতুক সঙ্গীতশিল্পী। স্ট্যান্ডআপ কমেডিতে কেরিয়ার শুরু করার পর দিল্লি বেলি, বদমাশ কোম্পানি এবং গো গোয়া গন-এর মতো ছবিতে অভিনয় করে হিন্দি সিনেমা জগতে পা রাখেন। ২০১৭ সালে, তিনি Netflix স্পেশাল ‘অ্যাব্রোড আন্ডারস্ট্যান্ডিং’-এ অভিনয় করেন।

সম্প্রতি, তাঁর ধর্ম তথা পরিচয় নিয়েও সোশ্যাল মিডিয়ায় কিছু বিতর্কিত তথ্য দেখা যায়। @agentvinod03 নামের এক twitter user ট্যুইট করে জানান, উইকিপিডিয়া অনুসারে তাঁর নাম বীর আব্দুল্লাহ দাস এবং তিনি একজন মুসলিম। বক্তব্যের সমর্থনে তিনি একটি উইকিপিডিয়ার স্ক্রিনশটও শেয়ার করেন, যেখানে তাঁর নাম ছিল বীর আব্দুল্লাহ দাস। অন্য আরেকজন user @RitaSinghal6-এর বক্তব্য, বীর দাস একজন মুসলিম এবং তিনি নিজের ধর্মের জন্য জেহাদ করছেন। শুধুমাত্র পন্থাটি আলাদা।

Fact Check:- খবরটি ছিল সম্পূর্ণ ভূয়ো। উইকিপিডিয়া হল একটি বহুভাষী মাধ্যম, যেখানে সমস্ত রকম তথ্য যে কেউ Edit করতে পারে। ১৭ই নভেম্বরের পর থেকে বীর দাসের উইকিপিডিয়ায় অনেকবার Edit করা হয়েছে। এই তথ্য পরিবর্তনের ইতিহাস পরবর্তীকালে উইকিপিডিয়া থেকে মুছে দেওয়া হলেও দুটি তথ্য পরিবর্তনের ইতিহাস এখনও পাওয়া যায়। সেই দুটি পরিবর্তনের মধ্যে একটি হল তাঁর নাম, বীর আবদুল্লাহ দাস এবং অন্যটি হল তাঁর নাগরিকত্ব, তিনি একজন নাইজেরিয়ান। যদিও বর্তমানে বীর দাস নামটিই দেখা যাচ্ছে উইকিপিডিয়ায়। এছাড়াও ২০১৯ সালের ২৬শে ফেব্রুয়ারি ওয়াল স্ট্রিট জার্নালে প্রকাশিত হওয়া বীর দাসের সাক্ষাৎকারে তিনি তাঁর বাবা মায়ের পরিচয় দিয়েছিলেন, যেখান থেকে এটা প্রমাণিত হয়েছিল তিনি মুসলিম ধর্মাবলম্বী নয়।

>
%d bloggers like this: